আর্জেন্টিনা চ্যাম্পিয়ান হলে খুশি হবো: নানজীবা খান

আর্জেন্টিনা চ্যাম্পিয়ান হলে খুশি হবো: নানজীবা খান

নুরুল ইসলাম :

কাতারে চলছে ফুটবল বিশ্বকাপ। পৃথিবীর অর্ধেকের বেশি মানুষের প্রিয় এই খেলার সর্বোচ্চ আসরকে ঘিরে বিশ্বজুড়ে চলছে চরম উন্মাদনা। সোশ্যাল মিডিয়া থেকে শুরু করে চায়ের দোকান, সর্বত্রই বইছে এই উন্মাদনার ঝড়। এই ঝড়ের বাইরে নেই দেশের শোবিজ অঙ্গনের তারকারা। আজ আমরা ফুটবল বিশ্বকাপ নিয়ে কথা বলবো দেশের তরুণ নির্মাতা, সাংবাদিক, উপস্থাপিকা, ট্রেইনি পাইলট, মডেল ও ইউনাইটেড নেশনস সিমুলেশন অ্যাম্বাসেডর নানজীবা খানের সাথে।

বিশ্বকাপে আপনার প্রিয় দল?
– খেলা এত বুঝি না, দেখা হয় না বললেই চলে। তবে আর্জেন্টিনার খেলা ভালো লাগে।

কেন প্রিয়?
– ছোট থেকেই তাদের পতাকা ভালো লাগতো। আর এখন মেসিকে পছন্দ তাই…

এবারের ফুটবল বিশ্বকাপে কোন দল চ্যাম্পিয়ান হবে বলে আপনি মনে করেন?
– আর্জেন্টিনা চ্যাম্পিয়ান হলে খুশি হবো।

আপনার পছন্দের দল চ্যাম্পিয়ান না হলে কোন দলের চ্যাম্পিয়ান হওয়ার সম্ভাবনা আছে বলে আপনি মনে করেন?
– পর্তুগাল অথবা এশিয়ার কোনো দেশ।

অল্প বয়সেই নিজের সৃজনশীলতার মাধ্যমে দেশে বিদেশে বেশ পরিচিতি লাভ করেছেন নানজীবা খান। তার প্রথম প্রামাণ্যচিত্র ‘সাদা কালো’ পরিচালনার জন্য ‘ইউনিসেফের মীনা মিডিয়া অ্যাওয়ার্ড’সহ নানা পুরস্কার অর্জন করেছেন। সর্বশেষ নির্মাণ করেছেন পুর্ণদৈর্ঘ্য ডকুফিল্ম ‘দি আনওয়ান্টেড টুইন’। এটি আগামী বছর মুক্তির পরিকল্পনা চলছে।

সম্প্রতি সুইজারল্যান্ডে ইউএন কনফারেন্সে বাংলাদেশের তরুণ প্রতিনিধি হিসেবে দেশকে তুলে ধরেছেন তিনি। নিযুক্ত হয়েছেন ইউনাইটেড নেশনস সিমুলেশন অ্যাম্বাসেডর। ইতোমধ্যে সুইজারল্যান্ড, দুবাই, থাইল্যান্ড ও সিঙ্গাপুরে অংশগ্রহণ করেছেন তিনি। সামনে ইতালি, জার্মানি ও স্পেনে যাওয়ার প্রস্তুতি নিচ্ছেন।

সদ্য থাইল্যান্ডে অনুষ্ঠিত কনফারেন্সে ১২৫টি দেশের ২০০ জনের বেশি তরুণ প্রতিনিধিকে পেছনে ফেলে প্রথমবারের মতো তার হাত ধরেই ‘বেস্ট ডিপ্লোম্যাট অ্যাওয়ার্ড-২০২২’ জিতেছে বাংলাদেশ। আয়োজনে উপস্থিত বক্তৃতা, বিতর্ক প্রতিযোগিতা ও সাংস্কৃতিক পরিবেশনাসহ বিভিন্ন প্রতিযোগিতায় অংশগ্রহণ করে এই অ্যাওয়ার্ড অর্জন করেন তিনি।

এর আগে গত সেপ্টেম্বরে দুবাইয়ে ইউনাইটেড নেশনস সিমুলেশন আয়োজিত বেস্ট ডিপ্লোম্যাটস কনফারেন্সেও বাংলাদেশকে প্রতিনিধিত্ব করে আউট স্ট্যান্ডিং ডিপ্লোম্যাট অ্যাওয়ার্ড অর্জন করেছেন।

বর্তমানে তিনি কাজ করছেন ‘প্রজেক্ট ইয়ুথ ফ্রন্ডলি বাংলাদেশ -এসডিজি ফর ইয়ুথ’ প্রজেক্টে। এছাড়াও তার নির্দেশনায় বিভিন্ন পেশার ২০০ তারকা নিয়ে ভিন্নধর্মী ফটোশুটের ২০০টি ছবিও খুব শিগ্রই সোশ্যাল মিডিয়ায় প্রকাশিত হবে।

শেয়ার করুন: