লবঙ্গ

লিভার ভালো রাখা’সহ বিভিন্ন রোগ সারায় লবঙ্গ

লাইফস্টাইল ডেস্ক

আপনি কি জানেন রান্নাঘরে থাকা বিভিন্ন ধরনের মসলায় রয়েছে স্বাস্থ্য উপকারিতা। যা শরীরের সকল গুরুত্বপূর্ণ অঙ্গ ভালো রাখাসহ বিভিন্ন ধরনের রোগ থেকে দিবে মুক্তি। এমনই এক মূল্যবান মসলা হলো লবঙ্গ। এতে রয়েছে বিভিন্ন উপকারিতা। এমনকি লবঙ্গ গাছের ফুল ব্যবহার করা হয় মসলা হিসেবে।

লবঙ্গ সর্বপ্রথম চীনের মসলা দ্বীপপুঞ্জের স্থানীয় রন্ধনপ্রণালীর একটি গুরুত্বপূর্ণ অংশ হিসেবে ব্যবহার করা হয়। এরপরই ইউরোপ ও এশিয়াতে এটি মশলা হিসেবে ব্যবহার ছড়িয়ে পড়ে। এতে রয়েছে অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট ও প্রো ভিটামিন এছাড়াও লবঙ্গতে রয়েছে বিটা-ক্যারোটিন। শারীরিক বহু ব্যাধির সাথে লড়াই করে আপনাকে সুস্থ রাখবে। বিটা-ক্যারোটিন চোখ সুস্থ রাখতে সাহায্য করে।

জেনে নেই, লবঙ্গের বেশ কিছু উপকারিতা:

লবঙ্গ প্রদাহ কমাতে বেশ কার্যকরী। লবঙ্গতে রয়েছে প্রদাহ-বিরোধী বৈশিষ্ট্য। ইউজেনল শরীরের প্রদাহজনিত প্রতিক্রিয় কমাতো এবং আর্থ্রাইটিসের মতো ভয়াবহ রোগরে ঝুঁকি কমাতে সাহায্য করে।

ফ্রি র‌্যাডিকেল কমায়
ফ্রি র‌্যাডিকেল শরীরের কোষকে দুর্বল করে ফেলে, যার ফলে ক্যানসারও হতে পারে। লবঙ্গে থাকা অ্যান্টি অক্সিডেন্ট হৃদরোগ, ডায়াবেটিস ও নির্দিষ্ট কিছু ক্যানসারের ঝুঁকি কমাতে বেশ সহায়ক।

আলসার কমায়
লবঙ্গ পেটের আলসারের বিরুদ্ধে প্রতিরোধ হিসেবে কাজ করে। গবেষণায় দেখা যায়, প্রতিদিন লবঙ্গ খেলে আলসার হবার ঝুঁকি কমে যায় সাথে আলসার নিরাময়েও সাহায্য করে।

এছাড়াও লিভার ভালো রাখে লবঙ্গ। লবঙ্গে থাকা ম্যাঙ্গানিজ শররের এনজাইমগুলো পরিচালনা করতে সাহায্য করে। ফলে হাড় মেরামত এবং হরমোন বাড়াতে সহায়ক হয়।

লবঙ্গ গ্রহণে যেসব সতর্কতা মেনে চলতে হবে-

ওষুধের মিথস্ক্রিয়া
আপনার যদি রক্ত পাতলা করার ওষুধ খান তাহলে লবঙ্গ এড়িয়ে চলুন। যদিও মসলা হিসেবে অল্প পরিমাণে লবঙ্গ খাওয়া নিরাপদ।

হাইপোগ্লাইসেমিয়া
লবঙ্গ রক্তে শর্করার মাত্রাকেও প্রভাবিত করে। তবে অত্যধিক পরিমাণে লবঙ্গ গ্রহণ করলে শর্করার মাত্রা অতিরিক্ত কমে যেতে পারে।

লবঙ্গ কীভাবে গ্রহণ করা উচিৎ?
লবঙ্গ শুকনো ফুল, এগুলো সারা বছরই মুদি দোকান’সহ সুপার শপগুলোতে পেয়ে যাবেন। খাবারে মসলা হিসেবে ব্যবহারের পাশাপাশি চাইলে চায়ের সাথে লবঙ্গ ব্যবহার করতে পারেন।

শেয়ার করুন: